সৌদি আরবে রোজা কবে ২০২৪

বাংলাদেশের অনেক মানুষ রয়েছে তারা সৌদি আরবের রোজার তারিখ জানার চেষ্টা করে। চাঁদ দেখার উপর ভিত্তি করে রমজান মাসের রোজা রাখার তারিখ নির্ধারিত হয়। কারণ প্রত্যেক মুসলিম বাংলাদেশী ভাইয়েরা সৌদি আরব অনুসরণ করে তার পরের দিন বাংলাদেশের রোজা পালন করে। রমজান মাস, আল্লাহর অশেষ রহমত ও বরকতের মাস। এই মাসের রোজা মুসলমানদের জন্যে ফরজ করা হয়েছে।

প্রতি বছরেই রহমত হিসেবে আল্লাহ তায়ালা বান্দাদেরকে একটি রমজান মাস উপহার দেয়। সৌদি আরব থাকা অনেক প্রবাসী ভাইয়েরা তারা কাজের ব্যস্ততায় রোজা করবে শুরু হবে এ তারিখ গুলো অনেকেরই জানা থাকে না। সাধারণত সৌদি আরবসহ মধ্য প্রাচ্যের দেশগুলো একই দিনে রোজা শুরু হয়। নতুন বছরে সৌদি আরবে রোজা কবে হবে এই সম্পূর্ণ পোস্টটি পড়লে জানতে পারবেন।

সৌদি আরবে রোজা কবে

মুসলিম সমাজের জন্য রমজান একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ মাস। রমজান মাসে আল্লাহর ইবাদত করলে অধিক সওয়াব অর্জন করা যায়। মধ্য প্রাচ্যের সবগুলো রাষ্ট্রই সৌদি আরবের চাঁদ দেখার উপর নির্ভর করে রোজা পালন করে। এ কারণে সৌদি থাকা সকল প্রবাসীরা কবে থেকে রোজা থাকতে হবে এ তথ্যগুলো জানতে চায়। কিছুদিন আগেই সৌদি আরবের রমজানের তারিখ প্রকাশিত হয়েছে। অর্থাৎ সৌদি আরবে ১১ই মার্চ থেকেই রোজা শুরু হবে।

সৌদি আরবে কি রমজানের চাঁদ দেখা গিয়েছে?

রমজান মাসের রোজা পালন করা মূলত চাঁদ দেখার উপর নির্ভরশীল হয়ে থাকে। প্রত্যেক বছরে রমজান শুরু হওয়ার আগে সৌদি আরবের চাঁদ দেখা কমিটি রোজা রাখার তারিখ নিশ্চিত করে। সৌদি আরবসহ আরো অন্যান্য দেশ তারা সৌদি আরবের নিয়ম অনুসারে রোজা পালন করে। এর জন্য প্রত্যেকেই সৌদি আরবের চাঁদ দেখার উপর নির্ভরশীল হয়ে বসে থাকে। কিছুদিন আগেই জানা গেছে এখনো রমজান মাসের চাঁদ দেখা যায়নি। সৌদি আরবে চাঁদ উঠলেই বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে প্রকাশ করা হবে।

চাঁদ দেখার খবর

সৌদি আরবে রমজান শুরু কবে

রমজান মাস, ইসলামের সবচেয়ে পবিত্র মাসের একটি। আল্লাহকে রাজি খুশি করার জন্য প্রত্যেক মুসলমান এই মাসে ফরজ রোজা পালন করে। বিশেষ করে সৌদি আরবের অনুসরণ করে বাংলাদেশে একদিন পরে রোজা অনুষ্ঠিত হয়। এ কারণে সবাই রমজান শুরু হওয়ার আগে সৌদি আরবে কবে রোজা শুরু হবে এই তথ্যগুলো জানতে চায়। এ বছর এখনো রমজানের চাঁদ দেখা যায়নি। সাধারণ ভাবেই এবার সৌদি আরবের রমজান শুরু হবে ১১ই মার্চ রোজ সোমবার থেকে।

সৌদি আরবে রোজা কত তারিখে

ইসলামী দিনপঞ্জিকা শাবান মাসের পরেই ১০ম মাসে রমজান মাস শুরু হয়। এ রমজান মাসে সেহরি এবং ইফতার খাওয়াও ইবাদত পালন হয়। এবং হাদিসের বর্ণিত রয়েছে যে ব্যক্তি একটি রোজাদার কে ইফতার করাবে আল্লাহ তায়ালা তার জীবনের সকল গুনাহ মাফ করে দিবেন। প্রত্যেক মুসলমান বান্দা রমজান মাসের অপেক্ষা করে থাকেন। সাধারণভাবে সৌদি আরব অনুসরণ করে মধ্যপ্রাচ্যের সবগুলো দেশেই রোজা পালিত হয়। এই বছর সৌদি আরবে রোজা শুরু হবে মার্চ মাসের 11 তারিখে।

শেষ কথা

সৌদি আরবে তীব্র গরমের মধ্যে রমজান মাসের রোজা পালন করা হয়। রোজা রাখার মাধ্যমে মুসলমানরা আল্লাহর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে এবং আত্মিক পরিশুদ্ধি লাভ করে। এই কারণে অনেকেই রোজা শুরু হওয়ার আগেই সঠিক তারিখ জানার চেষ্টা করে। ইতিমধ্যেই আমরা এই পোষ্টে নতুন বছরে সৌদি আরবে রোজা কবে শুরু হবে এই তথ্য উল্লেখ করেছি। আশা করি, আপনি আমাদের এই পোষ্টটি পড়ে রোজা রাখার সঠিক তারিখ জানতে পেরেছেন। ধন্যবাদ

আরও দেখুনঃ

সৌদি আরবে রমজানের চাঁদ উঠেছে কি ২০২৪

Mohsin Khan
Mohsin Khan